গানের স্বরলিপি

তোমাকে নিয়ে আমি

লাল ফড়িং - সসাস

তোমাকে নিয়ে আমি সার্থক কোন গান

পারিনি আজও সাজাতে

তোমাকে নিয়ে আমি প্রিয় কোন সুর

পারিনি হৃদয়ে বাজাতে

হে রাসূল হে রাসূল ।।

 

কল্পনার ফোঁটা ফোঁটা রঙে

যায় না তো আকাশে ছবি

এমন কাব্য গাঁথা হয়নি কখনই

পারেনি কভু কোন কবি

কি করে আমি তবে লিখবো কিছু গান

পারি না নিজেকে বোঝাতে ।

 

অপরূপ রূপে কভু সাজতো না কখনই এই যে বসুন্ধরা

বর্ণালী ইতিহাস হতো না লেখা শুধুই তোমাকে ছাড়া

 

তোমারই জীবন থেকে এতটুকু সঞ্চয়

গল্প কথা সব যায় হারিয়ে

সেই দিক পারি দিতে তাই বড় ভয়

সাহসের ডানা বাড়িয়ে

তাতেই জীবন আমার ধন্য হবে

পারলে তোমায় ভালোবাসতে ।

 

কথা : আব্দুল করিম সরকার

সুর : আব্দুল আলিম আশিক

নামাজ হলো

লাল ফড়িং - সসাস

নামাজ হলো মি’রাজ, 
মানে খোদার সাথে দেখা 
মু’মিন মনে নামাজ আঁকে 
পাঁচটি সরল রেখা ।


মুয়াজ্জিনের ডাক এলে আর 
যায় কি থাকা নিদে 
ঈমাণদারের মন সারাক্ষণ
রয় পড়ে মসজিদে।


সুবহে সাদিক জান্নাতি ক্ষণ 
ফজর পড়েন মুসল্লীগণ 
যোহর- আসর মাগরিব-এশার
আজান বাজে হৃদে
ঈমাণদারের মন সারাক্ষণ 
রয় পড়ে মসজিদে ।


‘বন্ধুরা, আয় আমার সাথে 
জান্নাতে কে যাবি” 
রাসুল বলেন,”নামাজ হলো 
বেহেশতেরই চাবি “ 
নামাজ পারে রুখতে সকল
অন্যায় ও অশ্লিল 
শুদ্ধ নামাজ খুলতে পারে 
রুদ্ধ মনের খিল ।

 

কথা: নাঈম আল ইসলাম মাহিন
সুর: হাসান আখতার
শিল্পী  কোরাস
 

ইয়া রাসূলাল্লাহ

লাল ফড়িং - সসাস

ইয়া রাসূলাল্লাহ ইয়া হাবিবাল্লাহ
ইয়া নাবীআল্লাহ ইয়া রাসূলাল্লাহ
আঁধার এ দুনিয়ায় 
তুমি ছাড়া নাই কোন আলো ।

 

অশান্তির এ দাবানলে
মাজলুমানের হাহাকারে
জাহেলিয়াতের আঁধার ঘোচাতে
তৌহিদী ঝড় তোলো ।

 

সালাম সালাম ওগো হাজার সালাম তোমাকে
তুমি ধন্য করেছো হেরার আলোয় ধরাকে

 

তোমার অথৈ প্রেমের ডোরে
হাসলো ভূবন নতুন ভোরে
রক্ত পাথার পেরিয়ে আবার
জান্নাতের দ্বার খোলো ।

 

কথা ও সুর:তোফাজ্জল হোসেন খান
 

লাল ফড়িং বলে

লাল ফড়িং - সসাস

লাল ফড়িং বলে প্রজাপতিকে
সৃষ্টি কে করেছে তোমায়
প্রজাপতি হেঁসে বলে তোমার প্রভ‚ যিনি
বানিয়েছেন আমায় ।

 

আকাশের রংধনু বৃষ্টিকে বলে
জানো কি প্রভ‚র নাম
বৃষ্টি পেখম মেলে মৃদু হেঁসে বলে
হৃদয়ে খোদার কালাম
ফুল পাখি তরুলতা সবাই বাঁচে
আল্লাহর স্নেহের ছায়ায় ।

 

জিরাফ প্রশ্ন করে কাকাতুয়াকে
শ্রেষ্ঠ নবীর কি নাম
কাকাতুয়া পাঠ করে দরুদ শরীফ
রাসূলকে জানাই সালাম
ফড়িং প্রজাপতি কিংবা আকাশ
প্রভ‚র রহমত চায় ।

 

কথা ও সুর: আমিরুল মোমেনিন মানিক

ভালোবাস দেশকে

লাল ফড়িং

ভালোবাস দেশকে ভালোবাস ফুল
ভালোবাস মাতা-পিতা নবী ও রসূল
ভালোবাস শান্তি ভালোবাস চাঁদ
জোছনার ঝিলিমিলি ফূর্তি অবাধ ।


মানুষকে ভালোবাস, ভালোবাস পাখি
যার সাথে সবুজের শুধু মাখামাখি।
গুনীজনে ভালোবাস, ভালোবাস নদী
কষ্টের পথে যারা হাঁটে নিরবধি।


মানুষকে ভালোবাস, ভালোবাস মাটি
সোনারঙ স্বপ্নের সুখ পরিপাটি
অতীতকে ভালোবাস, ভালোবাস দিন
জীবনের মতো সে যে গভীর গহীন ।


কথা: সাজ্জাদ হোসাইন খান 
সুর: আয়েশা সিদ্দিকা পাঠান
শিল্পী: সাবা তাসনুবা

দিকে দিকে ছড়াবে

বিকল্প সাহিত্য সাংস্কৃতিক সংসদ

দিকে দিকে ছড়াবে শান্তির বার্তা
হবে সব অনাচার খর্ব
করবো করবো এই বিশ্বটাকে
শান্তির এক স্বর্গ ।


তবে এসো খুলে দিই মনের দুয়ার
বিজয়ের গান গাই বার বার
স্বপ্ন দেখি সেই মহা সুদিনের
বাজাই সুরের সেই ডংকার
শক্ত হাতে বজ্রপাতে
ভাঙ্গি ঐ বাধার পাহাড়
গর্জে উঠি বার বার... ।

 

লক্ষ প্রাণের দানে আমাদের দেশ
আমাদের স্বাধীনতা
জীবন দেব তবু দেবনাতো মান
মানবো না পরাধীনতা
হারবো না কখনো কোন যুদ্ধে
ধরবো শক্ত হাতিয়ার
গর্জে উঠবো বার বার...।

 

আমরা ছিলাম আমরা আছি
আমরা রবো বিশ্ব জুড়ে
যেখানে থাকি যেভাবে থাকি
উঠবো মোরা পাতাল ফেড়ে

 

সমাজটাকে গড়বো মোরা
ন্যায়ের পন্থা দিয়ে
সত্য পথে লড়বো মোরা
সততার শক্তি নিয়ে
ভয় করিনা ঐ কালো চক্ষু
জাগবো দিয়ে হুংকার
গর্জে উঠবো বার বার...।

 

কথা ও সুর: আশরাফুল ইসলাম